» বরিশাল বাস মালিক সমিতিকে ঝালকাঠির মালিক-শ্রমিকদের আল্টিমেটাম

Published: ১৪. ডিসে. ২০১৭ | বৃহস্পতিবার

বরিশাল-পটুয়াখালী বাস মালিক সমিতির বিরুদ্ধে সমন্বয়হীনতার অভিযোগ তুলেছেন ঝালকাঠি বাস মালিক সমিতির নেতারা। ন্যায্য হিস্যা না দিয়ে বরিশাল-পটুয়াখালী বাস মালিক সমিতি জোর করে ঝালকাঠির আঞ্চলিক মহাসড়কের ৮ কিলোমিটারের ভেতর যাত্রীবাহী বাস চালাচ্ছে। বৃহস্পতিবার (১৪ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টায় স্থানীয় একটি কমিউনিটি সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে এসব অভিযোগ করেন ঝালকাঠি বাস ও মিনিবাস মালিক এবং শ্রমিক সংগঠনের নেতারা। আগামী ১৮ ডিসেম্বরের মধ্যে সমন্বয় না করলে ঝালকাঠি জেলার আঞ্চলিক সড়কগুলোতে বরিশাল-পটুয়াখালী সমিতির গাড়ি চলাচল করতে দেওয়া হবে না বলে আল্টিমেটাম দেওয়া হয়। প্রয়োজনে তীব্র আন্দোলন করার ঘোষণা দেন ঝালকাঠি বাস মালিক সমিতি। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন জেলা বাস ও মিনি বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মিলন মাহমুদ বাচ্চু।

লিখিত বক্তব্যে দাবি করা হচ্ছে- ঝালকাঠি-বরিশাল ও পটুয়াখালি-বরগুনা এবং পিরোজপুরের সঙ্গে সড়ক যোগাযোগে ঝালকাঠি জেলার আওতাধীন ৮ কিলোমিটার সড়ক বেশি। আর ঝালকাঠি-বরিশালের মধ্যে ঝালকাঠি জেলার আওতাধীন সড়ক ৯৫ ভাগ। কিন্তু ঝালকাঠি বাস ও মিনি বাস মালিক সমিতির গাড়িগুলোকে ঝালকাঠি-বরিশাল ছাড়া অন্য কোনো রুটে চলতে দেয়া হচ্ছে না। বিষয়টি সমন্বয় করার জন্য বারবার তাগিদ দিলেও বরিশাল-পটুয়াখালী মালিক সমিতি আজ পর্যন্ত তা বাস্তবায়ন করেনি। বরিশাল বিভাগের ৬ জেলার বাস মালিক সমিতির নেতাদের নিয়ে বিষয়টি সমাধানের জন্য বিভাগীয় প্রশাসনের কাছেও আবেদন জানানো হয়েছে। কিন্তু তাতেও কোনো সুরাহা হয়নি।

অচিরেই ঝালকাঠির ন্যায্য হিস্যা পূরণ করা না হলে ঝালকাঠির ৮ কিলোমিটার সড়কে বরিশাল, পটুয়াখালী ও বরগুনা মালিক সমিতির গাড়ি চলাচল বন্ধ করে দেওয়ারও আল্টিমেটাম দেওয়া হয়। সংবাদ সম্মেলনে ঝালকাঠি জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক খান সাইফুল্লাহ পনির, সহ-সভাপতি নাসির উদ্দিন আহমেদ, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান সুলতান হোসেন খান, বাস মালিক সমিতির সদস্য কাউন্সিলর রেজাউল করিম জাকির, মো. শাহআলম খলিফা এবং জামাল হোসেন মিঠু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Share Button